1. tanbircse2011@gmail.coim : Tanbir Nadim : Tanbir Nadim
  2. nssngo@gmail.com : Shahabuddin Panna : Shahabuddin Panna
  3. abdullahamtali@gmail.com : pvabd : pva bd
  4. aramtali@gmail.com : pvabdamt :
September 26, 2020, 8:15 am

গুগল আনল ভার্চুয়াল ভিজিটিং কার্ড

Reporter Name
  • Update Time : Friday, August 14, 2020,
  • 96 Time View

কোনো অপরিচিত ব্যক্তির সঙ্গে পরিচিতির ভালো একটি মাধ্যম হলো ভিজিটিং কার্ড। বিশেষ করে ব্যবসা বা চাকরি করতে গেলে ভিজিটিং কার্ডের প্রয়োজন পড়ে। যার মাধ্যমে কোনো অপরিচিত ব্যক্তিদের সঙ্গে নিজেকে সংক্ষিপ্তভাবে পরিচয় ঘটাতে সাহায্য করে। এ ধারণা থেকেই এবার ভার্চুয়াল ভিজিটিং কার্ড নিয়ে এসেছে গুগল। এটির নাম দেয়া হয়েছে পিপল কার্ড। এর মাধ্যমে অনলাইনে সহজেই খুঁজে পাওয়া যাবে যে কোনও ব্যক্তিকে।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানায়, গুগল সার্চে আপনার নাম লিখলেই জানা যাবে ন্যূনতম তথ্য। তবে এই পিপল কার্ড বাধ্যতামূলক নয়।

পিপল কার্ডে কী থাকবে?
কোনও সংশ্লিষ্ট ইউজার যদি নিজের সম্পর্কে গুগলে তথ্য দিতে চান, তবে কাজে আসতে পারে এই পিপল কার্ড। এর মাধ্যমে নিজের ফোন নম্বর, ওয়েবসাইট, ইমেল আইডি এবং আরও অনেক তথ্য আপনি গুগলে সবার সঙ্গে শেয়ার করতে পারেন।কেউ যদি আপনার নাম লিখে গুগলে সার্চ করে, তবে এই তথ্যগুলো সার্চ রেজাল্টে দেখা যাবে। কী কী তথ্য দেবেন, তার নিয়ন্ত্রণ আপনার হাতেই থাকছে। চাইলে পরবর্তীতে এই ভার্চুয়াল ভিজিটিং কার্ড তথ্য গোপনও করতে পারবে ইউজার।

গুগলের পক্ষ থেকে জানানো হয়, আপাতত শুধু স্মার্টফোন ইউজাররাই এই ফিচার ব্যবহার করতে পারবেন। এর মানে ল্যাপটপ বা ডেস্কটপ কম্পিউটার থেকে পিপল কার্ড ব্যবহার করা যাবে না।

যেভাবে পিপল কার্ড তৈরি করবেন:
নিজের গুগল অ্যাকাউন্টের সাহায্যে এই পিপল কার্ড তৈরি করা খুবই সহজ। প্রথমেই সাইন ইন করে নিন। এরপর গুগল সার্চে গিয়ে নিজের নাম সার্চ করতে পারেন বা টাইপ করতে পারেন ‘Add me to Search’। প্রথম যে রেজাল্ট আসবে, তা ফলো করেই নিজেকে গুগল সার্চে আনতে পিপল কার্ড বানাতে পারবেন আপনি।

কার্ড তৈরির পর ছবি (অপশনাল) বেছে নিন, ডেসক্রিপশন লিখুন, ওয়েবসাইটের লিংক এবং সোশ্যাল মিডিয়ার তথ্য দিতে পারেন। এছাড়াও ফোন নম্বর ও ইমেল আইডি দেওয়া যাবে।

পিপল কার্ডের সাইবার নিরাপত্তা?
ভার্চুয়াল এই কার্ডের তথ্য সুরক্ষার জন্য বেশ কিছু পদক্ষেপ নিয়েছে গুগল। একজন ইউজার একটিই পিপল কার্ড ব্যবহার করতে পারবে। বৈধতা যাচাইয়ের জন্য সংশ্লিষ্ট ইউজারের গুগল অ্যাকাউন্ট এবং ফোন নম্বর যাচাই করবে গুগল। এছাড়াও ইচ্ছামতো গুগল পিপল কার্ড থেকে তথ্য ডিলিট বা অ্যাড করতে পারবেন ইউজার। রয়েছে একটি ফিডব্যাক অপশনও। যার মাধ্যমে কার্ড সম্পর্কিত জরুরি যোগাযোগ করতে পারবেন ইউজার।

একই নামের দুই জন ইউজার!
কোটি কোটি ইউজারের মধ্যে এক নামে একাধিক ব্যক্তি থাকাটা একেবারেই স্বাভাবিক। এক্ষেত্রে পিপল কার্ড তৈরির সময় কী করবেন? এক্ষেত্রে আপনার করণীয় কিছু নেই। তবে ছবি দেওয়া জরুরি। কারণ, নাম ছাড়াও ছবি ও অন্যান্য তথ্যের মাধ্যমে সঠিক ইউজারকে চিহ্নিত করা সম্ভব হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
ওয়েবসাইট কাস্টোমাইজেশন : নেট মিডিয়া
Theme Customized BY Net Media